Ads Top


যশোরে বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীর ঢাকায় লাশ উদ্ধার

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশী মনোনয়ন বোর্ডে সাক্ষাৎকার দিতে এসে লাশ হয়ে ফিরলেন  আবু বকর আবু। মঙ্গলবার রাজধানীর বুড়িগঙ্গা নদী থেকে ঢাকার কেরানীগঞ্জ থানার পুলিশ অজ্ঞাত হিসেবে লাশটি উদ্ধার করে। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে কেরানীগঞ্জ থানার ফেসবুক পেজে বিষয়টি দেখে আবু বকর আবুর লাশ শনাক্ত করেন তার ভাতিজা হুমায়ূন কবির। আবু বকর আবু যশোর জেলা বিএনপির সহসভাপতি ও কেশবপুর উপজেলার মজিদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ছিলেন।

নিহতের পারিবারিক সূত্র জানায়, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশী আবু বকর আবু ১২ নভেম্বর ঢাকায় পৌঁছান। গত সোমবার সাক্ষাৎকার বোর্ডে অংশ নেওয়ার জন্য আগে থেকেই পল্টন এলাকার মেট্রোপলিটন হোটেলের চতুর্থতলায় ৪১৩ নম্বর কক্ষে অবস্থান করছিলেন। কিন্তু সাক্ষাৎকারের আগের দিন রবিবার রাত ৮টার পর তাকে আর পাওয়া যায়নি।

পরে ওইদিন রাত ১০টার দিকে একটি মোবাইল ফোন থেকে কেশবপুরে অবস্থানরত তার এক ভাগনের কাছে ফোন দিয়ে তার মামার জন্য দেড় লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করা হয়। সোমবার সকালে অপহরণকারীদের দেওয়া বিভিন্ন নম্বরে দেড় লাখ টাকা বিকাশ করা হয়। পরে তাদের চাহিদা অনুযায়ী আরও ২০ হাজার টাকা দেওয়া হয়। এর পর থেকে অপহরণকারীদের সব মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়। কিন্তু গত ৪ দিনেও তার কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি এবং ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটি বন্ধ ছিল। মুক্তিপণ দেওয়ার পরও সন্ধান না পাওয়ায় তার পরিবার ও কর্মী-সমর্থকরা উদ্বেগ উৎকণ্ঠার মধ্যে ছিলেন।

ঢাকায় অবস্থানরত তার ভাতিজা হুমায়ূন কবির জানান, তার চাচা নিখোঁজের ঘটনায় শাহবাগ থানায় একটি অভিযোগ করা হয়। এর পর থানা পুলিশের একটি দল হোটেলে গিয়ে সিসি ফুটেজ সংগ্রহ করেন। তবে এখনো এ ব্যাপারে থানায় কোনো জিডি বা মামলা রেকর্ড হয়নি বলে ঢাকায় অবস্থানরত তার ভাগনে আশিকুর রহমান জানান।
নিউজ সূত্র ঃ আমাদের সময় 
Powered by Blogger.